Joy Jugantor | online newspaper

করতোয়া নদীতে দুই লাখ পোনা ছাড়ল আরডিএ

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৯:০২, ২৭ জুলাই ২০২২

করতোয়া নদীতে দুই লাখ পোনা ছাড়ল আরডিএ

পোনা অবমুক্ত করছেন আরডিএ’র মহাপরিচালক খলিল আহমদ।

বগুড়ায় করতোয়া নদীতে দুই লাখ কার্প জাতীয় পোনা মাছ অবমুক্ত করেছে পল্লী উন্নয়ন একাডেমী (আরডিএ)। জাতীয় মৎস সপ্তাহ উপলক্ষে বুধবার সকালে করতোয়া নদীর রামনগর পয়েন্টে এ পোনা মাছ ছাড়া হয়।

পোনা অবমুক্তকরণ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন আরডিএ-র মহাপরিচালক খলিল আহমদ (অতিরিক্ত সচিব)।

এ সময় তিনি বলেন, চাষকৃত মাছের উৎপাদন বাড়লেও জলবায়ু পরিবর্তন ও মনুষ্য সৃষ্ট বিভিন্ন কারণে নদী-নালায় মাছের প্রাচুর্যতা ব্যাপক হারে কমে যাচ্ছে। যারা আগে নদী থেকে মাছ আহরণ করে খেতেন তাদেরকে এখন বাজার থেকে কিনে খেতে হচ্ছে। এছাড়া, নদী-নালায় মাছের প্রাচুর্যতা হ্রাস পাওয়ায় প্রান্তিক জেলেদের জীবিকা নির্বাহের উপর ব্যাপক চাপ সৃষ্টি করেছে।

খলিল আহমদ জানান, বর্তমান সরকারের বিভিন্ন মৎস্যবান্ধব কার্যক্রম গ্রহণ ও চাষি পর্যায়ে লাগসই প্রযুক্তি সম্প্রসারণের ফলে মাছ উৎপাদনে বাংলাদেশ সফলতা দেখিয়েছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঐকান্তিক প্রচেষ্টা ও প্রাজ্ঞ নেতৃত্বে ২০১৬-১৭ অর্থবছরে বাংলাদেশ প্রথমবারের মত মাছ উৎপাদনে স্বয়ংসম্পূর্ণতা লাভ করে। যার ধারা এখনও অব্যাহত রয়েছে ও প্রতিবছর ক্রমাগত হারে তা বাড়ছে।

এসময় অন্যান্যদের মাঝে বক্তব্য রাখেন, আরডিএ এর অতিরিক্ত মহাপরিচালক আব্দুল্লাহ আল মামুন, পরিচালক ড. নুরুল আমিন, বগুড়া জেলা মৎস্য কর্মকর্তা সরকার আনোয়ারুল কবীর আহম্মেদ, শেরপুর সিনিয়র উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মোঃ মাসুদ রানা সরকার। পল্লী উন্নয়ন একাডেমী, বগুড়ার অন্যান্য অনুষদবর্গসহ স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিগণ উপস্থিত ছিলেন।

আরডিএ সূত্র জানায়. করতোয়া নদীতে যাতে মাছের প্রাচুর্যতা বৃদ্ধি পায় সেজন্য পর্যায়ক্রমে একাডেমীর নিজস্ব হ্যাচারিতে উৎপাদিত গুণগত মানসম্পন্ন ১ কোটি দেশীয় কার্প জাতীয় মাছের পোনা অবমুক্তকরণ করা হবে। এ লক্ষ্যে বুধবার করতোয়া নদীর রামনগর পয়েন্টে রুই, কাতলা, মৃগেল, কালিবাউস মাছের আঙুলি ও টেবিল সাইজের দুই লাখ পোনা অবমুক্তকরণ করা হয়।