Joy Jugantor | online newspaper

নাসির-তাম্মির বিরুদ্ধে মামলা, তদন্তে পিবিআই

প্রকাশিত: ১৭:৩৬, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১

আপডেট: ১৭:৪৮, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১

নাসির-তাম্মির বিরুদ্ধে মামলা, তদন্তে পিবিআই

ফাইল ছবি

ক্রিকেটার নাসির হোসেন ও তার স্ত্রী তামিমা সুলতানা তাম্মির বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে।

তাম্মির স্বামী দাবিদার রাকিব হাসানের করা আবেদনটি মামলা হিসেবে নিয়েছেন ঢাকার মহানগর হাকিম মোহাম্মদ জসিম।

বিচারক মামলাটি তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন পুলিশ ব্যুরো অফ ইনভেস্টিগেশনকে (পিবিআই)।

এর আগে মামলার আবেদনে দণ্ডবিধির ৪৯৪/৪৯৭/৪৯৮/৫০০ ধারা অনুযায়ী নাসির ও তাম্মির বিরুদ্ধে বিয়ের তথ্য গোপন, অন্যের স্ত্রীকে প্রলুব্ধ করে প্রতারণার মাধ্যমে বিয়ে, ব্যভিচার ও মানহানির অভিযোগ আনা হয়েছিল।

বাদী রাকিবের আইনজীবী ইসরাত হাসান বলেন, ‘তাম্মি পূর্বের স্বামীকে তালাক না দিয়েই নাসিরকে বিয়ে করেছেন। আইন অনুযায়ী তারা উভয়ে অপরাধ করেছেন এবং এই বিয়ে বাতিল বলে গণ্য। তাই আমরা রাকিবের পক্ষে আদালতে উক্ত মামলার আবেদন করেছি। এখন আশা করছি আদালত একটি ভালো আদেশ দিবেন।’

১৪ ফেব্রুয়ারি বিশ্ব ভালোবাসা দিবসে রাজধানীর উত্তরার একটি রেস্তোরাঁয় নাসির ও তাম্মির বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হয়। নাসিরের স্ত্রী পেশায় একজন কেবিন ক্রু। কাজ করেন বিদেশি একটি এয়ারলাইনসে।

সেই বিয়ের পর শুরু হয় বিতর্ক। তামিমা তাকে তালাক না দিয়েই নাসিরকে বিয়ে করেছেন, এমন অভিযোগ করে উত্তরা পশ্চিম থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন রাকিব।

উত্তরা পশ্চিম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহ মো. আক্তারুজ্জামান ইলিয়াস জিডির বিষয়ে বলেছিলেন, ‘নাসিরের বউ তামিমার বিরুদ্ধে জিডি হয়েছে। কাগজে সে রাকিবের রানিং বউ। একটা সন্তান আছে।

‘রাকিবের ফার্নিচার তামিমার কাছে। ডিভোর্স না দিয়েই রাকিবের সঙ্গে চলমান সংসার রেখে নাসিরকে বিয়ে করে তামিমা, অভিযোগ করেছেন রাকিব।’

নাসির ও রাকিবের ফোনালাপ

রাকিবের দাবির মধ্যেই নাসিরের সঙ্গে তার একটি ফোনালাপ সোশ্যাল মিডিয়ায় চলে আসে। ফোনালাপে রাকিবকে ফোন দিয়ে জিডি-সংক্রান্ত ঝামেলা করতে নিষেধ করেন নাসির।

রাকিবকে নাসির বলেন, ‘জিডি করে আপনি কী পাইতেছেন?’
উত্তরে রাকিব বলেন, ‘আমি কিছুই পাইতেছি না। আপনি তামিমা সম্পর্কে সবকিছু জানেন?’

নাসির বলেন, ‘আমি সবকিছুই জানি।’

রাকিব বলেন, ‘‌কী জানেন আপনি?’

নাসির বলেন, ‘ওর বাচ্চা আছে। ওর বিয়ে হইছে। অলোক নামে বয়ফ্রেন্ড ছিল। আমি ওর সব জানি। আমি জেনেশুনেই বিয়ে করেছি। আপনি কি চান না তামিমা সুখে থাক?’

রাকিব বলেন, ‘তামিমা তো আমায় ক্লিয়ার কোনো কাগজ দেয় নাই। তামিমার সাথে যখন আপনার কথা হয়, তখন আমি বললাম, তামিমা, নাসির কে? তখন ও বলছে, ওর ফ্রেন্ড; আমার বাসায় আসছিল আমার জন্মদিনে। আপনি জেনেশুনে একজনের বউ বিয়ে করে ফেলছেন।’