Joy Jugantor | online newspaper

বগুড়ার ধুনটে আওয়ামী লীগ প্রার্থীর অফিস ভাংচুর

ধুনট (বগুড়া) প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১৬:১৩, ২৩ নভেম্বর ২০২১

বগুড়ার ধুনটে আওয়ামী লীগ প্রার্থীর অফিস ভাংচুর

ধুনটের গোপালনগর ইউনিয়নের মহিশুরা ও কালিতলা বাজার।

বগুড়ার ধুনট উপজেলায় ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে নৌকা প্রতীকের এক প্রার্থীর অফিস ভাংচুর ও তোরণে আগুন দেয়ার অভিযোগ উঠছে। সোমবার রাতে গোপালনগর ইউনিয়নের মহিশুরা ও কালিতলা বাজারের এই ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, বগুড়ার ধুনট উপজেলায় তৃতীয় ধাপের নির্বাচন আগামী ২৮ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। উপজেলার ১০টি ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতিকের চেয়ারম্যান প্রার্থী রয়েছেন একজন করে। উপজেলা গোপালনগর ইউনিয়নে নৌকার চেয়ারম্যান প্রার্থী হয়েছেন শাহ আলম। তিনি গোপালনগর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক। 

এছাড়াও ওই ইউনিয়নে আনারস প্রতিক নিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়েছেন আনোয়ারুল ইসলাম। তিনি অবসরপ্রাপ্ত স্কুল শিক্ষক ও ওই ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান। প্রার্থীরা প্রতিক বরাদ্দ পাওয়ার পর থেকে এলাকায় নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করেছেন। এ অবস্থায় সোমবার রাত ১টার দিকে একদল দুর্বৃত্ত নৌকার প্রতীকের মহিশুরা ও কালিতলা বাজারে দুটি নির্বাচনী অফিস ভাংচুর এবং কালিতলায় নৌকার তোরণ আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দিয়েছে।

আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতীকের প্রার্থী শাহ আলমের অভিযোগ, স্বতন্ত্র প্রার্থী আনোয়ারুল ইসলাম ও তাঁর কর্মী সমর্থকেরা প্রতিহিংসা করে তাঁর দুটি নির্বাচণী কার্যালয়ে ভাংচুর চালিয়েছে। এছাড়াও নৌকা প্রতিকের একটি তোরনে আগুন দিয়েছে। এ বিষয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ করা হবে।

এ বিষয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, নৌকা প্রতীকের প্রার্থী শাহ আলম তাঁর কর্মী সমর্থকেরা আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ করছেন। মূলত তারাই আমাকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়েছে। এছাড়াও আমার নির্বাচনী অফিস ও প্রচারের মাইক ভাংচুর করেছে। এ বিষয়ে প্রশাসনের নিকট মৌখিকভাবে অভিযোগ করেছি।

ধুনট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কৃপা সিন্ধু বালা বলেন, নৌকা প্রতীকের নির্বাচনী কার্যালয় ভাংচুরের সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। এ বিষয়ে এখন পর্যন্ত লিখিত কোন অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।