Joy Jugantor | online newspaper

কিয়েভসহ ইউক্রেনজুড়ে ব্যাপক বিমান হামলা রাশিয়ার

ডেস্ক রিপোর্ট

প্রকাশিত: ২১:৫৪, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২৩

কিয়েভসহ ইউক্রেনজুড়ে ব্যাপক বিমান হামলা রাশিয়ার

ছবি সংগৃহীত

ইউক্রেনে আকাশপথে ব্যাপক হামলা চালিয়েছে রাশিয়া। বৃহস্পতিবার (২১ সেপ্টেম্বর) ভোরে চালানো এই হামলায় রাজধানী কিয়েভসহ ইউক্রেনজুড়ে বিভিন্ন অঞ্চলে বহু অবকাঠামোকে লক্ষ্যবস্তু করা হয়।

এছাড়া রুশ এই হামলায় ১৮ জন আহত হয়েছেন বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে বার্তাসংস্থা রয়টার্স।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বৃহস্পতিবার রাজধানী কিয়েভ এবং অন্যান্য ইউক্রেনীয় শহরগুলোতে রাশিয়া ব্যাপক বিমান হামলা চালিয়েছে বলে কর্মকর্তারা জানিয়েছেন। এছাড়া হামলায় কমপক্ষে ১৮ জন আহত হয়েছেন এবং সারা দেশে অবকাঠামোগত ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলেও জানিয়েছেন তারা।

রয়টার্সের প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, বিমান হামলার সতর্কতার পর কিয়েভ এবং আশপাশের অঞ্চলে বিস্ফোরণের শব্দ শোনা গেছে। রাজধানী কিয়েভের বিভিন্ন স্থানে উদ্ধারকারী দল পাঠানোর কথা জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

ইউক্রেনের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ইহোর ক্লাইমেনকো বলেছেন, বৃহস্পতিবার ভোরে হওয়া এই হামলায় কিয়েভ ও চেরকাসি অঞ্চলে এবং পূর্বাঞ্চলীয় শহর খারকিভে কিছু মানুষ আহত হয়েছেন। টেলিগ্রাম মেসেজিং অ্যাপে তিনি লিখেছেন, ‘এটি অস্থির সকাল। ইউক্রেনের বিভিন্ন অঞ্চলে বিস্ফোরণের শব্দ শোনা গেছে।’

কিয়েভের মেয়র ভিটালি ক্লিটসকো বলেছেন, রাশিয়ার এই হামলায় কিয়েভে ৯ বছর বয়সী এক মেয়েসহ সাতজন আহত হয়েছেন। মিসাইলের ধ্বংসাবশেষ পড়ে একটি অবকাঠামো ও বেশ কয়েকটি অনাবাসিক ভবন ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে এবং এর ফলে সেখানে আগুনও লেগে যায়।

ক্লাইমেনকো বলেছেন, মধ্য ইউক্রেনের চেরকাসিতে রুশ হামলায় একটি হোটেল এবং বেশ কয়েকটি ছোট দোকান ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। হামলায় সেখানে সাতজন আহত হয়েছেন বলেও জানান তিনি।

এদিকে ইউক্রেনের জরুরি পরিষেবা টেলিগ্রামে একটি ভিডিও পোস্ট করেছে। সেখানে উদ্ধারকারীরা আহত এক ব্যক্তিকে স্ট্রেচারে করে অগ্নিকাণ্ডের স্থান থেকে নিয়ে যেতে দেখা যাচ্ছে। এছাড়া ইউক্রেনের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এবং আঞ্চলিক কর্মকর্তারা চেরকাসি, খারকিভ, খমেলনিটস্কি, রিভনে, ভিন্নিতসিয়া, লভিভ এবং ইভানো-ফ্রাঙ্কিভস্ক অঞ্চলে বিস্ফোরণের কথা জানিয়েছেন।

লভিভের আঞ্চলিক গভর্নর ম্যাকসিম কোজিটস্কি বলেছেন, তিনটি রুশ ক্ষেপণাস্ত্র পোলিশ সীমান্ত থেকে প্রায় ৬০ কিলোমিটার দূরে পশ্চিমাঞ্চলীয় দ্রোহোবিচ শহরে আঘাত হেনেছে। তিনি বলেছেন, সেখানে একটি অবকাঠামো এবং বেশ কয়েকটি গুদামে ক্ষেপণাস্ত্র আঘাত হানে।

গভর্নর ওলেক্সান্ডার প্রোকুদিন বলেছেন, রাতের আঁধারে হওয়া পৃথক হামলায় দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর খেরসনের একটি ছাত্রাবাসে রাশিয়ার গোলাবর্ষণে দুইজন নিহত হয়েছেন।