Joy Jugantor | online newspaper

বগুড়ায় স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার স্থাপন বিষয়ক মতবিনিময় সভা

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৯:৫৪, ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২১

আপডেট: ২০:১৭, ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২১

বগুড়ায় স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার স্থাপন বিষয়ক মতবিনিময় সভা

বগুড়ায় নেসকোর স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার স্থাপন বিষয়ক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। ছবি-জয়যুগান্তর

বগুড়ায় নর্দান ইলেকট্রিসিটি সাপ্লাই কোম্পানি লিমিটেড (নেসকো) এলাকায় ৫ লক্ষ স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার স্থাপন শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় মতবিনিময় সভা করেছে।

সোমবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে জেলা পরিষদ মিলনায়তনে জেলা প্রশাসন ও নেসকো লিমিটেডের আয়োজনে এ সভা করা হয়।

এতে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বগুড়া জেলা প্রশাসক জিয়াউল হক। নেসকো লিমিটেড রাজশাহী প্রধান প্রকৌশলী আব্দুর রশিদের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মজিবর রহমান মজনু, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ডা. মকবুল হোসেন, জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আব্দুর রশিদ, সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু সুফিয়ান সফিক।  

অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন রাজশাহী নেসকো লিমিটেডের স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটারিং প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক প্রকৌশলী মো. মাহবুবুল আলম চৌধুরী। এসময় স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার সংক্রান্ত বিষয়ে প্রেজেন্টেশন উপস্থাপন করেন প্রকল্পের নির্বাহী প্রকৌশলী সাইয়েদুল মুরসালীন।

নেসকো লিমিটেড সূত্রে জানা যায়, এলাকায় ৫ লক্ষ স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার স্থাপন করা হবে। এই মিটার ব্যবহার করার কারণে সম্মানিত গ্রাহকরা এনার্জি চার্জের উপর ১ শতাংশ হারে সুবিধা পাবেন। ম্যানুয়াল রিডিং গ্রহণের প্রয়োজন থাকছে না বলে ভুল করেও ওভার বা আন্ডার বিলিং হবে না। গরবিল,  অনাকাঙ্ক্ষিত কম বা বেশি বিল হওয়ার সুযোগ নেই। দেশের যেকোনো স্থান থেকে প্রতিমাসে স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটারে যত খুশি ততবার টাকা রিচার্জ করতে পারবে। গ্রাহক নিজেই তার ব্যবহৃত লোড কন্ট্রোল করে বিদ্যুৎ সাশ্রয় ব্যবহার নিশ্চিত করতে পারবেন। বিদ্যুৎ বিল বকেয়া রাখার সুযোগ না থাকায় সংযোগ বিচ্ছিন্নের আশঙ্কা থাকে না। নতুন সংযোগ গ্রহণ কিংবা লোড বৃদ্ধির ক্ষেত্রে গ্রাহককে কোনো নিরাপত্তা জামানত জমা দিতে হবে না।

নেসকো আরো জানায়, মিটার নষ্ট হলে তাৎক্ষণিক নেসকো কর্তৃপক্ষ মিটার প্রতিস্থাপন করবে। মিটারের ব্যালেন্স শেষ হওয়ার পূর্বে মিটারের ক্রেডিট লিড স্বয়ংক্রিভাবে লাল সংকেত দেবে এবং এসএমএসের মাধ্যমে মিটারের অবশিষ্ট ব্যালান্স সম্পর্কে গ্রাহককে জানানো হবে। জরুরি মুহূর্তে মিটার ব্যালেন্স শেষ হয়ে গেল ইমারজেন্সি ব্যালেন্স এর মাধ্যমে গ্রাহক বিদ্যুৎ ব্যবহার করতে পারবেন যা পরবর্তীতে সমন্বয় করা হবে। এছাড়াও স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটারের বিভিন্ন সুযোগ-সুবিধার বিষয়টি তুলে ধরা হয়।