Joy Jugantor | online newspaper

এমপি আনারের হাড়গোড় উদ্ধার করলো কলকাতা পুলিশ

ডেস্ক রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১৭:৩৮, ৯ জুন ২০২৪

এমপি আনারের হাড়গোড় উদ্ধার করলো কলকাতা পুলিশ

কলকাতার বাগজোলা খাল থেকে উদ্ধার হওয়া হাড়গোড়।

সংসদ সদস্য (এমপি) আনোয়ারুল আজিম আনার হত্যার ঘটনায় অভিযুক্ত সিয়ামকে নিয়ে তল্লাশি অভিযান চালিয়ে কলকাতার বাগজোলা খাল থেকে একাধিক হাড়গোড় উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ রোববার (৯ জুন) সকাল ৮টার দিকে সিয়ামকে নিয়ে ওই তল্লাশি অভিযান শুরু হয়। অভিযান শুরুর মাত্র ৩০ মিনিটের মধ্যেই উদ্ধার হয় হাড়গোড়।

এর আগে ১৬ দিনের বেশি সময় ধরে তল্লাশি চালিয়েও এমপি আনার হত্যার বিষয়ে কোনো কিছু উদ্ধার করতে পারেনি কলকাতা পুলিশ।

গত শনিবার (৮ জুন) সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজীম হত্যার ঘটনায় গ্রেপ্তার সিয়াম হোসেনকে ১০ দিনের রিমান্ডে নিয়েছে পশ্চিমবঙ্গের সিআইডি পুলিশ। দুপুরে তাকে বারাসাতের চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করে ১৪ দিনের রিমান্ড আবেদন করলে আদালত ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

ভারতের পশ্চিমবঙ্গের সিআইডির মহাপরিদর্শক (আইজি) অখিলেশ চতুর্বেদী বিষয়টি নিশ্চিত করে এনটিভি অনলাইনকে শনিবার সন্ধ্যায় বলেন, ‘আমরা তাকে ১০ দিনের রিমান্ডে পেয়েছি। আমরা জিজ্ঞাসাবাদ করেছি। আশা করছি, তার কাছ থেকে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাব।’

আনোয়ারুল আজীম হত্যার ঘটনায় সন্দেহভাজন হিসেবে নেপালে আটক সিয়াম হোসেনকে শুক্রবার ভারতের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

এ হত্যা মামলায় এখন পর্যন্ত দুই দেশ মিলিয়ে মোট পাঁচজন আসামি গ্রেপ্তার হয়েছেন। এর মধ্যে তিনজন বাংলাদেশে এবং বাকি দুজন ভারতের পশ্চিমবঙ্গে। বাংলাদেশে গ্রেপ্তার আসামিরা হলেন সৈয়দ আমানুল্লাহ ওরফে শিমুল ভূঁইয়া ওরফে শিহাব ওরফে ফজল মোহাম্মদ ভূঁইয়া, তানভীর ভূঁইয়া ও শিলাস্তি রহমান। ভারতে গ্রেপ্তার হয়েছেন জিহাদ হাওলাদার ও সিয়াম হোসেন।

অভিযানের শুরুতেই সিয়ামের দেখিয়ে দেওয়া স্থানে তল্লাশি শুরু করে পুলিশ। তবে এর আগে সিআইডির হাতে গ্রেপ্তার হওয়া জিহাদ যে স্থানের কথা বলেছিল, আজ সিয়াম সেই স্থানের পরিবর্তে ভিন্ন স্থান দেখায়। আর সেখানে তল্লাশি চালিয়েই একাধিক হাড়গোড় উদ্ধার করা হয়।

প্রাথমিকভাবে হাড়গুলো দেখে মানুষের হাড় বলেই মনে হচ্ছে। আসামি সিয়ামের দাবি, এগুলো বাংলাদেশের এমপি আনারের। যদিও সিআইডির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, এসব হাড় এমপির কি-না বিষয়টি নিশ্চিত হতে উদ্ধার হওয়া হাড়গোড়গুলো ফরেনসিক পরীক্ষার জন্য পাঠানো হবে।