Joy Jugantor | online newspaper

কে তৃতীয় পক্ষ, পরিষ্কার হতে চান অপু বিশ্বাস

ডেস্ক রির্পোট

প্রকাশিত: ১৯:০০, ২৬ নভেম্বর ২০২২

কে তৃতীয় পক্ষ, পরিষ্কার হতে চান অপু বিশ্বাস

ফাইল ছবি।

জন্মদিন উপলক্ষে শাকিব খানের কাছ থেকে ডায়মন্ডের নাকফুল উপহার পাওয়ার কথা সংবাদমাধ্যমে জানানোর পরই যেন বিপাকে পড়েন অভিনেত্রী শবনাম বুবলী।

কেননা, অভিনেত্রী অপু বিশ্বাস সংবাদের লিংকটি ব্যক্তিগত ফেসবুকে শেয়ার করে কারো নাম উল্লেখ না করে একটি স্ট্যাটাস দেন। তারপর ধারাবাহিকভাবে যেন বাকযুদ্ধে জড়িয়ে পড়েন দুই অভিনেত্রী। তবে তারা কেউ কারো নাম উল্লেখ করেননি তাদের পোস্টে।

সম্প্রতি বুবলী বলেছেন, শাকিব খান এবং তার মাঝে তৃতীয় একজন হঠাৎ করেই ঢুকে গেছেন। এমন জবাবের উত্তর দিতে গিয়ে নায়িকা অপু বিশ্বাস এক জাতীয় গণমাধ্যমে বলেছেন, তিনি কি সরাসরি আমার নাম বলেছেন? যাই হোক, এসব শুনে আমার হাসি পাচ্ছে। কে তৃতীয় পক্ষ, কে প্রথম পক্ষ, আরেকটু পরিষ্কার করা দরকার ছিল। তার প্রতিটি বক্তব্যই আমার কাছে হাস্যকর মনে হয়।

তিনি বলেন, এসবের কারণে সাধারণ মানুষ আমাদের নিয়ে কী ভাববেন? আমাদের অভিনয় মানুষ পছন্দ করেন। আমাদের ভালোবাসেন। রাজ্জাক, কবরী, জাফর ইকবাল, সালমান শাহ, শাবনূরসহ অনেকেই আমার পছন্দের তারকা। তারাও তো এই ইন্ডাস্ট্রিতে কাজ করেছেন। কিন্তু কোনো বিষয় নিয়ে তাদের তো এত টানাহেঁচড়া দেখিনি। এখন এই ইন্ডাস্ট্রি কেমন যেন হয়ে গেছে। এভাবে চলতে থাকলে আমাদের প্রতি মানুষের শ্রদ্ধা, ভালোবাসার জায়গা উঠে যাবে।

আপনাকে নিয়েও তো শাকিব খান কথা বলেছেন, এমন প্রশ্নের জবাবে অপু বলেন, বলেছেন। কিন্তু আমি তো আর অন্যের মতো কোনো প্রতিবাদ করছি না। কোনো মিথ্যাচার করছি না। আর আমার সঙ্গে এটি যায়ও না। আমি একজন মানুষ, আমি একজন অভিনেত্রী—এসব দিয়েই আমার ব্যক্তিত্ব প্রকাশ করি। কোনো মনগড়া কথা বলে সেই ব্যক্তিত্ব আমি নষ্ট করব না।

এর আগে বৃহস্পতিবার বিকালে সংবাদমাধ্যমকে বুবলী জানান, গত কয়েক দিন ধরে একটা তৃতীয় পক্ষের স্ট্যাটাস, আজ শাকিবের বক্তব্য—এসব গভীরভাবে ভাবলে তা বুঝতে পারবেন। তার (শাকিব খান) এমন আচরণে সন্দেহ হচ্ছে।

তিনি আরও জানান, সন্দেহ হচ্ছে আমার। তৃতীয় পক্ষের কারো ইন্ধন রয়েছে এখানে। সেখান থেকে কোনো চাপও থাকতে পারে শাকিব খানের ওপর। এসব শাকিব খানের সঙ্গে আগের সম্পর্কের মাঠ তৈরির প্রস্তুতি কিনা, তা ভাবার বিষয়। এমনটা না হলে হঠাৎ কেন আমার সঙ্গে এমন আচরণ করবেন বীরের বাবা শাকিব খান।