Joy Jugantor | online newspaper

ফেরি থেকে নামতে গিয়ে পায়ের চাপায় ৫ জন নিহত

ডেস্ক রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১৭:০৫, ১২ মে ২০২১

ফেরি থেকে নামতে গিয়ে পায়ের চাপায় ৫ জন নিহত

মাদারীপুরের বাংলাবাজারে আজ বুধবার ফেরি থেকে নামতে গিয়ে পদদলিত হয়ে নিহত পাঁচজন।

মাদারীপুরের বাংলাবাজারে ফেরি থেকে নামতে গিয়ে পৃথক দুটি ঘটনায় ভিড়ের চাপে পদদলিত হয়ে পাঁচজন নিহত হয়েছে। এ সময় আহত হয়েছে অর্ধশতাধিক। আজ বুধবার দুপুরে এ ঘটনা ঘটে। মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে জানা গেছে।

কাঁঠালবাড়ী ফেরিঘাটের ব্যবস্থাপক মো. সালাউদ্দিন পাঁচজনের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করে বলেন, আজ দুপুরে শিমুলিয়া থেকে বাংলাবাজারের উদ্দেশে ছেড়ে আসা ফেরি ‘এনায়েতপুরী’তে মাঝপদ্মায় থাকা অবস্থায় গরমে ও ভিড়ের চাপে অতিষ্ট যাত্রীদের মধ্যে হুড়োহুড়ি শুরু হয়। এ সময় অনেকেই অসুস্থ হয়ে পড়েন। বাংলাবাজার ঘাটে পৌঁছাতেই তাড়াহুড়ো করে নামতে গিয়ে পদদলিত হয়ে চারজন যাত্রী নিহত ও অর্ধশতাধিক অসুস্থ হয়ে পড়ে। এদের মধ্যে কয়েকজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

পরে স্থানীয় লোকজন ও ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা আহতদের উদ্ধার করে স্থানীয়ভাবে চিকিৎসার ব্যবস্থা করেন। তাৎক্ষণিকভাবে নিহতদের নাম-পরিচয় জানা যায়নি।

এর আগে দুপুর ১২টার দিকে শাহ পরান ফেরিতে পদদলিত হয়ে আনচুর মাদবর (১৫) নামের এক কিশোর মারা যায়।

পুলিশ ও ঘাট সূত্র জানায়, বেলা পৌনে ১১টার দিকে শিমুলিয়া ফেরিঘাট থেকে প্রায় তিন হাজার যাত্রী নিয়ে শাহ পরান নামের একটি রো রো ফেরি রওনা হয়। ফেরিটি বাংলাবাজার পৌঁছায় দুপুর ১২টায়। ফেরিটি বাংলাবাজার ঘাটের ৩ নম্বর পন্টুনে নোঙর করার সঙ্গে সঙ্গে দ্রুত নামতে গিয়ে হুড়োহুড়ি শুরু করেন যাত্রীরা। যাত্রীদের উপচে পড়া ভিড়ে চাপা পড়ে আনচুর মাদবর নামের এক কিশোর মারা যায়। সে শরীয়তপুরের নড়িয়া উপজেলার কলিকাপ্রসাদ এলাকার গিয়াস উদ্দিন মাদবরের ছেলে। আচনুর তার পরিবারের সঙ্গে ঢাকা থেকে গ্রামের বাড়িতে ফিরছিল।

শিবচর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিরাজ হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।